মেনু নির্বাচন করুন
পাতা

এক নজরে

এক নজরে কৃষি বিপণন অধিদপ্তর

সংক্ষিপ্ত পরিচিতি:

 

পটভূমি: অবিভক্ত ভারত উপমহাদেশে ১৯২৮ সনে ‍‌‍রয়েল কমিশন অন এগ্রিকালচার কৃষকের উৎপাদিত ফসলের ন্যায্যা মূল্য প্রদানের লক্ষ্যে একটি ব্যাপক ভিত্তিক কৃষি বিপণন কাঠামো সৃষ্টির প্রয়োজনীয়তা অনুভব করে। উৎপাদন বৃদ্ধি অব্যাহত রেখে উৎপাদকদের উৎসাহব্যঞ্জক মূল্য প্রদানের জন্য কমিশন কেন্দ্রীয় সরকারকে সুপারিশ করে।

 

অধিদপ্তরের সৃষ্টি :

 

  • নয়াদিল্লিতে সদর দপ্তর করে ১৯৩৪ সনে এগ্রিকালচারাল মার্কেটিং এডভাইজার নিয়োগ করা হয়। অত:পর ১৯৩৫ সনে কেন্দ্রীয় এবং প্রাদেশিক পর্যায়ে মার্কেটিং স্টাফ নিয়োগ করা হয়।
  • ১৯৪৩ সনে অবিভক্ত বাংলায় মার্কেটিং ডিপার্টমেন্ট স্থায়ী করা হয় এবং সিনিয়র মার্কেটিং অফিসারের পদবীকে ডাইরেক্টর অব এগ্রিকালচারাল মার্কেটিং এ রুপান্তর করা হয়।
  • ১৯৮২ সন পর্যন্ত কৃষি বিপণন অধিদপ্তরের নাম ছিল “ কৃষি বাজার পরিদপ্তর”।
  • ১৯৮২ সনে এনাম কমিটি কর্তৃক কৃষি বিপণন অধিদপ্তরকে পূর্নগঠন করা হয় এবং ১৯৮৩ সনে যে সকল পরিদপ্তরের অফিস প্রধানের বেতন স্কেল যুগ্মসচিব বা তদূর্ধ পদমর্যাদার ছিল, সে সকল পরিদপ্তরকে সরকার “অধিদপ্তর” হিসেবে ঘোষণা করে।

 

ভিশন :

            উৎপাদক, বিক্রেতা ও ভোক্তা সহায়ক কৃষি বিপণন ব্যবস্থা ও কৃষি ব্যবসা উন্নয়নের মাধ্যমে জাতীয় অর্থনীতিতে অবদান রাখা।

মিশন :

ক) কৃষিপণ্যের চাহিদা ও যোগান নিরুপণ, মজুদ ও মূল্য পরিস্থিতি বিশ্লেষণ ও অত্যাবশ্যকীয় কৃষিপণ্যের মুল্য ধারার আগাম প্রক্ষেপণ এবং এ বিষয়ক তথ্য ব্যবস্থাপনা ও প্রচার করা।

খ) আধুনিক সুবিধা সম্বলিত বাজার অবকাঠামো নির্মাণ এবং কৃষিপণ্যের বিপণন ও সরবরাহ ব্যবস্থায় সহায়তা প্রদানের মাধ্যমে দক্ষ বাজার ব্যবস্থা গড়ে তোলা।

            গ) কৃষিপণ্যের গুনগতমান পরিবীক্ষণ করা , গুরুত্বপূর্ণ কৃষিপণ্যের মান নির্ধারণ ও বিপণন সেবা প্রদানে সহায়তা করা ।

            ঘ) কৃষক বিপণন গ্রুপ/দল গঠন এবং উৎপাদক ও বিক্রেতার সাথে ভোক্তার সংযোগ স্থাপনে সহায়তা দান।

            ঙ) কৃষি ব্যবসা ও কৃষি ভিত্তিক শিল্প স্থাপনের মাধ্যমে কৃষি ও কৃষিজাত পণ্যের রপ্তানী বৃদ্ধিতে সহায়তা করা।

চ) কৃষক ও ব্যবসায়ীদের কৃষিপণ্যের গ্রেডিং, সটিং, প্যাকেজিং, প্রক্রিয়াজাতকরণ ও সংরক্ষণ বিষয়ে প্রশিক্ষণ, বিপণন ও ঋণ সহায়তা প্রদানের মাধ্যমে কৃষিপণ্যের মূল্য সংযোজন কার্যক্রম অব্যাহত রাখা।

 

রাংগামাটি কার্যালয়ের অর্গানোগ্রাম/জনবল : (পূর্বের সেটআপ অনুযায়ী)

জেলা মার্কেটিং অফিসার-০১ জন

 

অফিস সহকারী কাম কম্পিউটার মুদ্রাক্ষরিক-০১ জন

অফিস সহায়ক-০১ জন

রাংগামাটি জেলা কার্যালয়ের কার্যক্রম :

  • কৃষকের উৎপাদিত কৃষিপণ্যের ন্যায্য মূল্য প্রাপ্তিতে সহায়তা করা।
  • ভোক্তা পর্যায়ে যৌক্তিক মূল্য নিধারণ ও মনিটরিং করা ।
  • বাজার তথ্য সংগ্রহ করা এবং দৈনিক ভিত্তিতে www.dam.gov.bd সাইটে আপলোড করা।
  • বিভিন্ন সংস্থা/দপ্তরের চাহিদা মোতাবেক বাজার দরের তথ্য প্রদান করা ।
  • কৃষকপ্রাপ্ত বাজার হতে পাক্ষিক ভিত্তিতে বাজারদর সংগ্রহ এবং সদর কার্যালয়ের নির্ধারিত শাখায় প্রেরণ।
  • উৎপাদন খরচ ও মূল্য বিস্তৃতির তথ্য সংগ্রহ ও অধিদপ্তরে প্রেরণ।
  • অধিদপ্তর/বিভাগীয় কার্যালয়ের চাহিদা মোতাবেক কার্যসম্পাদন।
  • নিয়ন্ত্রিত বাজারের বাজার কারবারীদের লাইসেন্স নবায়ন ও নতুন লাইসেন্স প্রদান।

 

 

 

জেলার মোট প্রজ্ঞাপিত বাজার সংখ্যা

 

ক্রমিক নং

উপজেলার নাম

নিয়ন্ত্রিত বাজারের নাম

০১

রাংগামাটি সদর

ক) বনরুপা বাজার

খ) তবলছড়ি বাজার

গ) রিজার্ভ বাজার

০২

কাপ্তাই

ক) কাপ্তাই বাজার

খ) রাইখালী বাজার

০৩

কাউখালী বাজার

ক) কাউখালী বাজার

খ) ঘাগড়া বাজার

০৪

নানিয়ারচর

ক) নানিয়ারচর বাজার

০৫

বাঘাইছড়ি

ক) মারিশ্যা বাজার

০৬

বরকল

ক) ছোট হরিণা বাজার

০৭

লংগদু

ক) মাইনী বাজার

 

রাংগামাটি জেলার বাজার ভিত্তিক লাইসেন্স সংখ্যা :

 

ক্রমিক নং

উপজেলার নাম

নিয়ন্ত্রিত বাজারের নাম

০১

রাংগামাটি সদর

ক) বনরুপা বাজার-১৭৩টি

খ) তবলছড়ি বাজার-৮৬টি

গ) রিজার্ভ বাজার-৯৮টি

০২

কাপ্তাই

ক) কাপ্তাই বাজার-৭০টি

খ) রাইখালী বাজার-১৫টি

০৩

কাউখালী বাজার

ক) কাউখালী বাজার-১৫টি

খ) ঘাগড়া বাজার-১৪টি

০৪

নানিয়ারচর

ক) নানিয়ারচর বাজার-০৩টি

০৫

বাঘাইছড়ি

ক) মারিশ্যা বাজার-১৫টি

০৬

বরকল

ক) ছোট হরিণা বাজার-০০

০৭

লংগদু

ক) মাইনী বাজার-৩২টি

 

অর্থ বৎসর ভিত্তিক রাজস্ব আয় :

 

ক্রমিক নং

অর্থ বৎসর

আদায়কৃত রাজস্ব

০১

২০১৫-১৬ অর্থ বৎসর

=১৫৫,১৩৫ টাকা

 

০২

২০১৬-১৭ অর্থ বৎসর

=২৬৭,২৬০/-

 

০৩

২০১৭-১৮ অর্থ বৎসর

=

 

 

ছবি


সংযুক্তি



Share with :

Facebook Twitter